কুড়িগ্রামের রাজারহাটে মোবাইল কোর্টে বাঁধা দেয়ায় মামলা,ব্যবসায়ীদের মানবন্ধন

প্রকাশিত: ১০:৩০ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ২২, ২০২১
সোহেল রানা, কুড়িগ্রাম জেলা প্রতিনিধি,
রাজারহাটে চাউল ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মামলা প্রত্যাহারের দাবীতে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভা করেছে ব্যবসায়ীরা। এর প্রতিবাদে তারা শুক্রবার সকাল থেকে উপজেলা সদর বাজারের সমস্ত প্রকার ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রেখেছে। ফলে রাজারহাটে ব্যাপক জনদুর্ভোগ দেখা দিয়েছে।
মামলা ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে,মঙ্গলবার রাজারহাট সদর বাজারের চাউল সেটে প্লাস্টিক বস্তায় চাল বিক্রির অপরাধে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নুরে তাসনিম মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন। ৩জন ব্যবসায়ীর কাছ থেকে এক হাজার টাকা করে জরিমানা করেন তিনি। এসময় ব্যবসায়ীরা একত্রিত হয়ে ইউএনও সহ সংশ্লিষ্টদের অশ্লীল ভাষা প্রয়োগসহ সরকারি কাজে বাধা প্রদান করেন। এ ঘটনায় ওই দিন রাতে কুড়িগ্রাম পাট উন্নয়ন মুখ্য পরিদর্শক কার্যালয়ের পাট উন্নয়ন সহকারী রওশনারা বেগম বাদী হয়ে রাজারহাট থানায় ব্যবসায়ী কমল চন্দ্র,পুতুল চন্দ্র ও আবুল কালাম আজাদ নামের তিনজনের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করেন। এদিকে মামলা হওয়ার পর বৃহস্পতিবার থেকে প্রথমে চাল ব্যবসায়ীরা দোকানপাট বন্ধ রাখলেও ওইদিন রাতে উপজেলা বাজার বনিক সমিতির সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী শুক্রবার  সকাল থেকে উপজেলা সদর বাজারের সমস্ত দোকানপাট বন্ধ করে দিয়েছেন ব্যবসায়ীরা। এছাড়া শুক্রবার সকালে রাজারহাট বাজারের হাসপাতাল রোডে ব্যবসায়ীরা মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভা করেন। প্রতিবাদ সভায় তারা দায়েরকৃত মামলাটি কে মিথ্যা ও হয়রানিমূলক উল্লেখ করে তা প্রত্যাহারের দাবি জানান। এতে বক্তব্য রাখেন,উপজেলা-সদর বণিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক,আলকাছ আলী,আব্বাস আলী প্রমুখ।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নূরে তাসনিম বলেন,সরকারি কাজ করতে গিয়েছি, তারা বাঁধার সৃষ্টি করেছে। একারণে রেগুলার মামলা হয়েছে। আদালতের কাছে আমি বিচার প্রার্থী
Print Friendly, PDF & Email