শান্তিগঞ্জের টাইলা বাজারে রের্কডীয় ভূমি জবর দখলের পায়ঁতারা আদালতে মামলা

প্রকাশিত: ১২:২৮ পূর্বাহ্ণ, মার্চ ২৩, ২০২২
প্রতিকী ছবি

মুহিবুর রেজা টুনু,সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি-
সুনামগঞ্জের শান্তিগঞ্জ উপজেলার পশ্চিম বীরগাওঁ ইউনিয়নের টাইলা বাজারে টাইলা গ্রামের বাসিন্দা মো মতচ্ছির আলীর রের্কডীয় ভূমি জোরজবর দখলের পায়তারা করায় অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আদালত বরাবরে ৪ জনকে অভিযুক্ত করে ফৌজদারি মামলা দায়ের করা হয়েছে। বিবিধ মোকদ্দমা নং-১৬৬/২২ইং। অভিযুক্তরা হলো, টাইলা গ্রামের মৃত ছুরাব উল্ল্যার ছেলে মো. জামাল উদ্দীন, তার ছেলে জাবেদ মিয়া, জুবেদ মিয়া, নাইওর মিয়ার ছেলে সুজাত মিয়া।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, শান্তিগঞ্জ উপজেলার পশ্চিম বীরগাও ইউনিয়নের টাইলা মৌজার জেএলনং-এস.এ ২৫৯,আর.এস ৩৯ সংক্রান্ত এস.এ খতিয়ান নং-১২৯, আর.এস ১৬৬ নং- খতিয়ানের এস.এ ২৯৪, আর.এস ২৮৪ নং- দাগের টাইলা বাজারে ২ শতাংশ ভূমি আর.এস রের্কডীয় মালিক ইসলাম আলীর নিকট থেকে বিনিময় মূল্যে বিগত ১৩/১০/২১ইং তারিখে শান্তিগঞ্জ সাব- রেজিষ্ট্রার অফিসের মাধ্যমে ২৩৩০ নম্বর সাফ কবালা রেজিষ্টারী দলিল মূলে মো মতচ্ছির আলী ভূমির দখলকার মালিক হন। ঘটনার দিন সকালে মো মতচ্ছির আলী তার খরিদা ভূমিতে গৃহ নির্মাণ করিতে গেলে প্রতিপক্ষ গংরা সুলফি-ঝাটা নিয়ে হামলা করিতে উত্যক্ত হলে ভূমির মালিক প্রাণ রক্ষার জন্য চিৎকার করিলে আশপাশের লোকজন ঘটনাস্থলে পৌছে প্রতিপক্ষগংদের বাধাঁ নিষেধ করিলে মতচ্ছির আলী মারধর থেকে রক্ষা পায়। প্রতিপক্ষরা ঘটনাস্থল ত্যাগ করার সময় হুমকি দেন ঐ ভূমিতে যদি কোন প্রকার স্থাপনা নির্মাণ করা হয় তাহলে দেখে নেবে। ভূমির মালিক মতচ্ছির আলী বলেন, প্রতিপক্ষ গংদের ভয়ে আমার খরিদা ভূমিতে গৃহ নির্মাণ করতে পারছি না। প্রতিপক্ষগংরা যাতে আমার ভূমিতে অনধিকার প্রবেশ করিতে না পারে সে জন্য বিজ্ঞ আদালতে অস্থায়ী নিষেধাজ্ঞার আবেদন করেছি। জামাল উদ্দীনের মোবাইল ফোনে কল করেও তাকে পাওয়া যায়নি। তাই বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি। এ ঘটনায় শান্তিগঞ্জ থানা পুলিশ গত ২১ মার্চ ঘটনাস্থল সরেজমিনে পরিদর্শন করে এই ২শতক ভূমিতে জামাল উদ্দীনের টং দোকান সরিয়ে নিতে একদিনের সময় সীমা বেধেঁ দেয়া হয়েছে।
এ ব্যাপারে শান্তিগঞ্জ থানার তদন্তকারী কর্মকর্তা এস.আই আব্দুল ওয়াদুদ বলেন, জামাল উদ্দীন নামের একজন লোক ঐ জায়গার উপর একটি দোকান ঘর করে আছেন। আমি জামাল উদ্দীনকে জিজ্ঞেস করলাম আপনি কিসের বলে ঘর বানিয়ে আছেন। তখন জামাল উদ্দীন বলেন আমার দুর সর্ম্পকের বোনের জায়গায় ঘর বানিয়ে আছি। আমার নিজের কোন কাগজ পত্র নেই। আগামী ২৭ মার্চ উভয় পক্ষের কাগজ পত্র নিয়ে থানায় আসার জন্য বলে এসেছি। কাগজ পত্র দেখে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Print Friendly, PDF & Email