কালীগঞ্জে নির্যাতনের শিকার হয়ে রাস্তায় রাত কাটালো গৃহবধূ

প্রকাশিত: ৪:৩০ অপরাহ্ণ, মে ১০, ২০২২

 লালমনিরহাটের কালীগঞ্জ উপজেলার দলগ্রাম ইউনিয়নে শ্বশুরবাড়ির ও মানসিক নির্যাতনের শিকার হয়ে রাস্তায় রাত কাটালেন এক গৃহবধূ । পরে কালিগঞ্জ থানা পুলিশ নির্যাতনের শিকার গৃহবধূ কে উদ্ধার করে প্রাথমিক চিকিৎসার জন্য কালীগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।

১০ ই মে ( মঙ্গলবার) উপজেলার দক্ষিণ দলগ্রাম এলাকায় ঘটনাটি ঘটে।  সরেজমিনে জানা গেছে যে, দক্ষিণ দলগ্রামের স্থায়ী বাসিন্দা  আব্দুল বাতেনের   সরকারি চাকরিজীবী পুত্র সুমন মিয়া (২৩)  একই এলাকার উপজেলার  তুষভান্ডার ইউনিয়নের কাশীধাম গ্রামের মৃত আলী হোসেনের  কন্যা প্রিয়া মনি (২০) কে গত ২০২১ সালে মুসলিম শরিয়ত মোতাবেক বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন।  এরপর থেকেই শুরু হয় তাদের দাম্পত্য জীবন।  সুমন মিয়া  সরকারি চাকরি করার সুবাদে স্ত্রী প্রিয়া মনি কে নিজ বাড়িতে রেখে চাকরিতে চলে যান।  ঘটনা পূর্ব হতে স্ত্রীর সঙ্গে সুমন মিয়া যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন রাখে। এবং গত ৯ মে রাতে শ্বশুরবাড়ির লোকজন  রিয়া মনি কে নির্যাতন করে  বাড়ির বাইরে বের করে দেন বলে জানা গেছে।

 

এ বিষয়ে ইউপি সদস্য কাবেজ বলেন, মেয়েটিকে নির্মম নির্যাতন করে বাড়ির বাইরে বের করে দিলে মেয়েটির বাড়ির পাশে রাস্তায় শুয়ে  থাকতে দেখে আমিও গ্রামপুলিশ মেয়েটির নিরাপত্তার কথা চিন্তা করে সারারাত  মেয়েটির নিরাপত্তা নিশ্চিত করেছি।  এবং পরদিন সকালে কালিগঞ্জ থানা পুলিশ এসে মেয়েটিকে উদ্ধার করে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করিয়েছেন।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হতে গৃহবধূ  বলেন , আমার বিয়ের পর থেকে আমি শ্বশুর বাড়িতে অবস্থান করছি। গতকাল আমার শ্বশুরবাড়ির লোকজন আমাকে নির্যাতন করে বাড়ির বাইরে বের করে দেয়।  

এ বিষয়ে  সুমন মিয়ার বাড়ি র লোকজন পলাতক থাকার কারণে তাদের কারো সঙ্গে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।  অপরদিকে এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত কালীগঞ্জ থানায় কোনো অভিযোগ দায়ের করা হয়নি তবে অভিযোগের প্রস্তুতি চলছে বলে জানা গেছে। 

Print Friendly, PDF & Email